|

ভালুকায় হতদরিদ্রদের চালভর্তি ট্রাকসহ আ‘লীগ নেতা ও চালক আটক

প্রকাশিতঃ ৩:১০ অপরাহ্ণ | মে ০৬, ২০১৯

স্টাফ রিপোর্ট, ভালুকার খবর: ময়মনসিংহের ভালুকায় খাদ্যবান্ধব কর্মসূচীর আওতায় হতদরিদ্রদের জন্য বরাদ্দকৃত ১০ টাকা (কেজি) মূল্যের চাল পাঁচারের সময় ইউনিয়ন আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জসীম উদ্দিন খান ওরফে বিল্লাল ডিলার ও চালক নাজমুল হককে ট্রাকভর্তি চালসহ আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছেন স্থানীয়রা। ঘটনাটি ঘটেছে সোমবার ভোর রাতে উপজেলার বগাজান বাজারে।

স্থানীয় একাধিক সূত্রে জানা যায়, জসীম উদ্দিন খান ওরফে বিল্লাল ইউনিয়ন আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক পদ ব্যবহার করে মেদুয়ারী ইউনিয়নে খাদ্যবান্ধব কর্মসূচীর আওতায় হতদরিদ্রদের জন্য বরাদ্দকৃত ১০ টাকা কেজি চাল বিক্রির ডিলারসীপ নেন। ডিলারসীপ নিয়েই উপজেলা খাদ্য কর্মকর্তা হাসান আলীর সাথে গভীর সম্পর্ক গড়ে তুলেন। ঘটনার রাতে বগাজান বাজারে তাঁর গোডাউন থেকে হতদরিদ্রদের জন্য বরাদ্দকৃত চাল পাচারের উদ্দেশ্যে ট্রাকে (ঢাকা মেট্রো-ন-১৮-৮২৮০) ভর্তি করেন।

বিষয়টি আশপাশের লোকজন জানতে পেরে জসীম উদ্দিন খান ওরফে বিল্লাল ডিলার ও মেদুয়ারী গ্রামের সিরাজুল হকের ছেলে ট্রাকচালক নাজমুল হককে ট্রাকভর্তি চালসহ আটক করে ভালুকা মডেল থানা পুলিশকে অবগত করেন। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে চালভর্তি ট্রাকসহ তাদেরকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, চাল বিতরণকালে খাদ্য বিভাগ বা তদারকি কর্মকর্তা (ট্যাগ অফিসার) উপস্থিত থাকার কথা থাকলেও কখনো তাদেরকে দেখা যায়নি। তাছাড়া গত ৩০ মে চাল বিতরণের সময় শেষ হলেও ৫ দিন পর ওই ডিলারের ঘরে থেকে ট্রাকে চালভর্তির বিষয়টি সন্দেহ হওয়ায় তাদেরকে ট্রাকসহ আটক করে পুলিশকে জানানো হয়েছে। স্থানীয়রা আরো জানান, ওই ডিলারের বিরুদ্ধে এর আগেও চাল বিতরণে অনিয়মের অভিযোগ রয়েছে।

এদিকে উপজেলার সর্বত্রই খাদ্যবান্ধব কর্মসূচীর চাল বিতরণে ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। উপজেলা খাদ্য কর্মকর্তা ও ট্যাগ অফিসারের সাথে যোগসাজস করে সংশ্লিষ্ট খাদ্য ডিলাররা এসব অনিয়ম করেছেন বলে বিভিন্ন সূত্র থেকে জানা গেছে।

এ ব্যাপারে মেদুয়ারী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান জেসমিন নাহার রানী জানান, খাদ্যবান্ধব কর্মসূচীর ১০ টাকা (কেজি) মূল্যের ৫০০ কেজি চাল ভর্তি ট্রাকসহ ডিলার বিল্লাল ও চালককে আটক করেছে থানা পুলিশ।

ভালুকা উপজেলা খাদ্য কর্মকর্তা হাসান আলীকে চালভর্তি ট্রাকসহ ডিলার গ্রেফতারের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি সাংবাদিকদের এ ঘটনার কোন তথ্য দিতে পারবেন না বলে জানান।

ভালুকা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মাইন উদ্দিন ১০ টাকা মূল্যের ট্রাকভর্তি চাল উদ্ধার ও আটকের বিষয়টি সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ৪০ বস্তা চালভর্তি ট্রাকসহ ডিলার ও চালককে আটক করা হয়েছে। এ ব্যাপারে থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। বিষয়টি তিনিই তদন্ত করবেন বলে জানান।

ভালুকা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মাসুদ কামাল জানান, ট্রাকভর্র্তি চালসহ ডিলার আটকের বিষয়টি তদন্ত করে প্রযোজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Print Friendly, PDF & Email