|

ভালুকায় চাঁদাবাজির প্রতিবাদে অটো চালকদের বিক্ষোভ

প্রকাশিতঃ ৪:৪৯ অপরাহ্ণ | অক্টোবর ৩১, ২০১৯

নিজেস্ব প্রতিবেদক, ভালুকার খবরঃ ভালুকা উপজেলায় নজিরবিহীন চাঁদাবাজির প্রতিবাদে ব্যাটারি চালিত অটো চালকরা ধর্মঘট ও বিক্ষোভ করেছে। বুধবার সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত পৌরসদরের কানার বাজারের বটতলায় ভালুকা-গফরগাঁও সড়কে ওই বিক্ষোভ করে অটো চালকরা।

অটো চালকরা জানান, তারা হতদরিদ্র মানুষ। বিভিন্ন ব্যক্তি, এনজিও থেকে ঋণ নিয়ে ব্যাটারি চালিত অটো কিনেছেন। সেই অটো চালিয়ে এখন ঋনের টাকা পরিশোধ ও সংসারের খরচ চালান। কিন্তু সড়কে নজিরবিহীন চাঁদাবাজির কারণে ঋনের টাকা পরিশোধ নিয়ে দুশ্চিন্তায় পড়েছেন তারা। প্রতিদিন গড়ে ভালুকা-গফরগাঁও ও আশেপাশের রাস্তায় তিন শতাধিক অটো চলাচল করে।

অন্তত দশজন ব্যাটারি চালিত অটোচালক জানান, প্রত্যেক অটো থেকে প্রতিদিন জিপি ও পৌরসভার নামে ২০ টাকা করে মোট ৪০ টাকা এবং প্রতিমাসে ১০০ টাকা করে শ্রমিক সংঘঠন ও থানা পুলিশের নামে চাঁদা দিতে হয়। প্রতিদিন ২০ টাকা করে নেওয়ার পরও এখন আড়াই হাজার টাকা জমা দিয়ে লাইসেন্স নেওয়ার জন্য বাধ্যতামূলক করে দিয়েছে ভালুকা পৌরকর্তৃপক্ষ। লাইসেন্স না থাকলে অটোর চাবি, সীট ও ব্যাটারী খুলে নিয়ে যায় পৌরসভার লোক জন। লাইসেন্স করলে জিপি ও পৌরসভার টাকা দিতে রাজি নয় তারা।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে ভালুকা পৌরসভার মেয়র একেএম মেজবাহ উদ্দিন কাইয়ুম বলেন, ‘এটা নিয়ম শৃংক্ষলার জন্য দরকার’। অন্য চাঁদাবাজির কথা আমার জানা নাই’।

অটো চালকদের থেকে টাকা নেওয়ার বিষয়ে জানতে চাইলে ভালুকা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি)মাইন উদ্দিন জানান, তিনি এই থানায় যোগদানের পর কোনো অটো জব্দ করা হয়নি।মহাসড়কের যানবাহন দেখার দায়িত্ব হাইওয়ে পুলিশের’।

Print Friendly, PDF & Email